এশিয়া-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে বাংলাদেশের অর্থনীতি উজ্জ্বল

0
182

বাংলাদেশ দ্রুত বিকাশমান অর্থনীতি হিসাবে উজ্জ্বল, কারণ এটি দারিদ্র্য হ্রাসের একটি গুরুত্বপূর্ণ অগ্রগতি অর্জন করেছে।

এই প্রবৃদ্ধি এমন সময়ে ঘটে যখন বিশ্বব্যাপী অর্থনৈতিক দৃষ্টিভঙ্গি চ্যালেঞ্জপূর্ণ থেকে যায় যেখানে এশিয়ার বেশিরভাগ উন্নয়নশীল দেশগুলিতে এই বৃদ্ধির মধ্যম হওয়ার আশা করা হচ্ছে।

বাংলাদেশে এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকের (এডিবি) কান্ট্রি ডিরেক্টর মনমোহন প্রকাশ বলেছেন, বাংলাদেশ কৃষিতে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি অর্জন করেছে, সবজি উৎপাদনে তৃতীয় স্থান অর্জন করেছে, ধান উৎপাদনে চতুর্থ এবং আম উত্পাদনে সপ্তম। দেশ এখন ভাত-পর্যাপ্ত।
এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকের (এডিবি) সাম্প্রতিক পরিসংখ্যান উল্লেখ করে দেখানো হয়েছে যে কীভাবে ২০০৯-২০১৮ অর্থবছরে বাংলাদেশের ধানের উৎপাদন প্রায় ৩৭ শতাংশ বেড়ে ৩৬ মিলিয়ন মেট্রিক টন হয়েছে, দেশটি ২০১৯ এবং ২০২০ সালে ৮ শতাংশ প্রবৃদ্ধি নিয়ে দাঁড়াতে পারে।
আজকের এই কঠিন বৈশ্বিক অর্থনৈতিক দৃষ্টিভঙ্গিতেও বাংলাদেশকে বৃদ্ধির মডেল হিসাবে দেখা হচ্ছে, তিনি বলেছিলেন
তিনি আরও বলেছিলেন, গমের উৎপাদন বেড়েছে ৫ শতাংশ বেড়ে ১২ কোটি মেট্রিক টন, ভুট্টা ৬৪৬ শতাংশ বেড়ে ৩৯ মিলিয়ন মেট্রিক টন, আলু ১৪৮ শতাংশ বেড়ে ১০৩ মিলিয়ন মেট্রিক টন, ডাল ২৭৫ শতাংশ বেড়ে ১০ কোটি মেট্রিক টন এবং শাকসবজি ৬৪৫ শতাংশ বেড়েছে ১৫৯ মিলিয়ন মেট্রিক টন।

আরও লক্ষণীয় বিষয় হচ্ছে, প্রাকৃতিক দুর্যোগ ও বিপর্যয় সত্ত্বেও বাংলাদেশ এই প্রবৃদ্ধি অর্জন করেছে।
বিপুল সামাজিক সুরক্ষা-নেট কর্মসূচির সফল প্রয়োগের ফলে দেশটি গ্রামাঞ্চলে দারিদ্র্য হ্রাস এবং আয় বৃদ্ধিতে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি করেছে।

বিশেষজ্ঞরা বলেছিলেন, হাজার হাজার দরিদ্র পরিবার অর্থনৈতিক দুর্বলতা কাটিয়ে ওঠা আর্থ-সামাজিক অবস্থার পাশাপাশি গত দশ বছরে জীবনযাত্রার মান উন্নত করে স্বাভাবিক জীবনযাপন করছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here